১৯শে মে, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, বুধবার

শিরোনাম
মির্জাগঞ্জ উপজেলা স্টুডেন্টস’অ্যাসোসিয়েশনের পক্ষ থেকে এতিমদের মাঝে পোশাক বিতরণ। মির্জাগঞ্জ উপজেলা বাসীর পাশে শতামেক ছাত্রলীগের প্রদীপ্ত, ঢা.ম.উ ছাত্রলীগের নয়ন হেফাজতে জামাতি অশুভ শক্তি বগুড়ায় প্রাণিজ আমিষ নিশ্চিত করণে ভ্রাম্যমাণ দুধ, ডিম, মাংস বিক্রয় কার্যক্রম শুরু ঢাকা দুই এমপিকে ‘লাস্ট ওয়ার্নিং’ সরকারি নীতি নির্ধারকদের মন্ত্রী, প্রতিমন্ত্রী ও উপমন্ত্রীদের আমলনামা চেয়েছেন প্রধানমন্ত্রী ডিজিটাল বাংলাদেশের স্থপতি সজীব ওয়াজেদ জয় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব ম্যারাথন-২০২১ আয়োজন করল বাংলাদেশ করোনার নিয়ন্ত্রণ ও চিকিৎসায় দক্ষিণ এশিয়ায় বাংলাদেশের অবস্থান প্রথম:স্বাস্থ্যমন্ত্রী

ভূগর্ভস্থ ২০০ কিলোমিটার এলাকাজুড়ে ইরানের ক্ষেপণাস্ত্র শহর উন্মোচন

আপডেট: জানুয়ারি ৯, ২০২১

ইরানের ইসলামী বিপ্লবী গার্ডস বাহিনীর (আইআরজিসি) প্রধান কমান্ডার মেজর জেনারেল হোসেইন সালামি শুক্রবার পারস্য উপসাগরের উপকূলে একটি ভূগর্ভস্থ ক্ষেপণাস্ত্র শহর উন্মোচন করেছেন। এসময় আইআরজিসি’র নৌবাহিনীর কমান্ডার রিয়ার অ্যাডমিরাল আলিরেজা তাংসিরিসহ উচ্চ পদস্থ সামরিক কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন। খবর আরব নিউজ ও আনাদোলুর।

সামরিক ঘাঁটির উদ্বোধন অনুষ্ঠানে মেজর জেনারেল হোসেইন সালামি বলেন, আঞ্চলিক অখণ্ডতা, দেশের স্বাধীনতা এবং ইসলামি বিপ্লবের সাফল্যকে ধরে রাখাই আমাদের সামরিক কর্মসূচির উদ্দেশ্য। আমরা বিশ্বাস করি যে, আমাদের শত্রুরা যুক্তির চেয়ে শক্তির ভাষাকে বেশি গুরুত্ব দেয়। তাই তাদের আধিপত্যবাদী চক্রান্তের বিরুদ্ধে আমাদের আক্রমণাত্মক এবং প্রতিরক্ষামূলক সামরিক শক্তি বৃদ্ধি ছাড়া আর কোনো বিকল্প নেই।

হোসেইন সালামি জানান, আইআরজিসি বেশ কয়েকটি কৌশলগত ক্ষেপণাস্ত্র স্থাপনা নির্মাণ করেছে। সেখানে মজুদ ক্ষেপণাস্ত্রগুলোর পাল্লা কয়েকশ’ কিলোমিটার এবং সেগুলোর সুনির্দিষ্ট স্থানে আঘাত হানতে পারে। উপসাগরীয় উপকূলে প্রায় দুই হাজার ২০০ কিলোমিটার এলাকাজুড়ে ইরানের ক্ষেপণাস্ত্র শহর অবস্থিত।